ঈদের আগেই শিক্ষকদের মহা আনন্দ দিলেন প্রধানমন্ত্রী

মোহাম্মদ আলী শামীম

এডুকেশন বাংলা

প্রকাশিত : ১১:১২ এএম, ২০ মে ২০২০ বুধবার

ননএমপিও ফেডারেশন কেন্দ্রীয় সভাপতি অধ্যক্ষ গোলাম মাহমুদুন্নবী ডলারের নেতৃত্বে দীর্ঘ দিন রাজপথে আন্দোলন কারার পর ২০১৯/২০২০ অর্থ বছরে এমপিও খাতের বাজেটে অর্থ দেন বঙ্গকন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
একাদশ নির্বাচনের পূর্বে ননএমপিও ফেডারেশন সভাপতিকে বঙ্গকন্যা কথা দিয়েছিলেন,নির্বাচনের পর ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিও করবেন এবং করেছেন।

২০১৯ খ্রিঃ আগস্ট মাসে বঙ্গকন্যা ২৭৩০ টি ননএমপিও স্কুল,কলেজ,মাদরাসা  বিএম স্কুল, কলেজ, মাদরাসা ও কৃষি প্রতিষ্ঠানন এমপিও ঘোষণা করেন।যা ছিলো ব্রিটিশ,পাকিস্তান ও বাংলাদেশ শাসকের  ইতিহাসে/ যুগের  সর্ব শ্রেষ্ঠ ইতিহাস।উচ্চ শিক্ষার ধাপে এই তিন আমলের প্রায় ২৫০ বছরে কোন শাসক এমন সাহস করতে পারেনি। যা বঙ্গকন্যা করতে পেরেছেন।

২০১৯ আগস্টে এমপিও ঘোষণা হলেও আমলা তান্ত্রিক জটিলতার কারনে দীর্ঘ ৯ মাস আটক ছিলো এমপিও। মহামারি করোনার দুঃসময়ে এপ্রিল ২০২০ খ্রিঃ সকল শিক্ষক সংগঠন স্বাশিপ,বাশিস,লিয়জো ফোরাম মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে বিষয়টি অবগত করেন। ৩/৫ দিনের ভিতরে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমলা তান্ত্রিক জটিলতা ভেঙে চুরমার করে দিলেন।

৩০ হাজারের বেশি এবং ৩৫ হাজারের চেয়ে কিছু কম বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় থেকে উচ্চ শিক্ষা গ্রহণকারী  শিক্ষকের মুখে উদিত হলো সোনালী হাসি।এমপিওটি এমন ভাবে পর্দার আড়ালে ছিলো কোন আলোচনা হলেই আমলারা সেঠি বিশ্বকাপের মূল ট্রপির মতো তারা দেখিয়ে আবার আড়াল করে রাখতেন। তা সব ছিলো প্রধানমন্ত্রীর অজানা।শিক্ষক সংগঠনের নেতৃবৃন্দের কারনে সেঠি আবারও প্রধানমন্ত্রী জানলেন, বিজলীর চমকের মতো সমাধান করে দিলেন।
বঙ্গকন্যা কারো কাছ থেকে পরামর্শ নেবারও প্রয়োজন মনে করেননি!

দীর্ঘ ১ যুগ/ দেড় যুগ /২ যুগ ধরে আনন্দ থেকে বঞ্চিত এমপিও ঘোষিত প্রতিষ্ঠানের শিক্ষদের মধ্য ঈদের আগেই চলে এলো ঈদের চাইতেও মহা আনন্দ।

আমালাতান্ত্রিক জটিলতায় নীতিমালার বেড়াজালে রয়েছে কয়েক হাজার ননএমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।সেসব প্রতিষ্ঠান সমূহকে দ্রুত এমপিওর ঘোষণা করবেন বলে বিশ্বাস রাখি বঙ্গকন্যা আপনার উপর।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি পারবেন।আপনি হলেন বঙ্গবন্ধুর কন্য।আপনার দীর্ঘায়ু কামনা করি।


লেখক: প্রভাষক মোহাম্মদ আলী শামীম, সভাপতি ননএমপিও ফেডারেশন,
মৌলভীবাজার জেলা শাখা ও সাংগঠনিক সম্পাদক,সিলেট বিভাগ।

 (ভূকশিমইল মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও কলেজ,কুলাউড়া, সদ্য এমপিও প্রতিষ্ঠান)