শনিবার ২৫ মে, ২০১৯ ১৭:১৬ পিএম


'নুসরাত হত্যার সাথে জড়িতদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে'

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৩:৪৬, ২১ এপ্রিল ২০১৯  

মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যাকাণ্ডের ঘটনা সরকারের জন্য অগ্নিপরীক্ষা বলে মন্তব্য করেছেন ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারনেশনাল বাংলাদেশের পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান। আজ রবিবার সকাল ১১টায় টিএসসিতে অনুষ্ঠিত ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ আয়োজিত এক মানববন্ধনে তিনি এ কথা বলেন।

ইফতেখারুজ্জামান বলেন, আমাদের আইন প্রয়োগকারী সংস্থার একাংশ মানসিক বৈকল্যের কাছে ভুগছে বলে আমি মনে করছি। তারা দুর্নীতিগ্রস্থ, তারা রাজনৈতিকভাবে প্রভাবিত, তারা ব্যাপকভাবে অন্যায়ের সাথে জড়িত। নুসরাতের ঘটনা সরকারের জন্য অগ্নিপরীক্ষা।

নুসরাতের প্রতি যে অন্যায় অবিচার হয়েছে স্বাধীন বাংলাদেশের ৪৮ বছরে এসে আমরা তা স্বপ্নেও ভাবতে পারি না। অপরাধের ঊর্ধ্বগতিতে আমরা খুবই উদ্বিগ্ন। সত্যিকার অর্থে কোন অপরাধেরই বিচার হয়নি।

তিনি আরও বলেন, নুসরাতকে সরাসরি যারা হত্যা করেছে শুধু তারাই এর সাথে জড়িত নয়। এর সাথে জড়িত স্থানীয় প্রশাসন, আইন প্রয়োগকারী সংস্থা এবং সামাজিকভাবে প্রভাবশালী ব্যক্তিবর্গ। লক্ষ্য করলে দেখ যায় যেখানেই এ ধরনের ঘটনা ঘটে সেখানে একটি সিন্ডিকেটের তৈরি হয়।

আমরা দাবি জানাচ্ছি নুসরাত হত্যার সাথে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে যারা জড়িত তাদের আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে এবং এর কোন বিকল্প নেই।

টিআইবির পরিচালক বলেন, আমি এখন আপনাদের যে কথাগুলো বলছি তা খোলামেলাভাবেই বলতে পারি, এরমধ্যে কিন্তু কোনো আস্থা নেই যে আমাদের এই দাবি সত্যিকার অর্থে পূরণ হবে। কারণ আমরা বিচারকদের কাছ থেকে শুনেছি বিচারের উপর তাদের নিজেরই আস্থা নেই। তা সত্ত্বেও আমরা দেশের নাগরিক হিসেবে আমাদের দাবি অব্যাহত রাখব।

টিআইবির পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান ছাড়াও মানবন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন উপ-পরিচালক ড.সুমাইয়া আক্তার, পরিচালক কমিনিউকেশন শেখ মঞ্জুরুল ইসলামসহ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

এডুকেশন বাংলা/এজেড

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর