বৃহস্পতিবার ১৭ অক্টোবর, ২০১৯ ১৪:১৪ পিএম


হাল ছেড়ে লক্ষ্যচ্যুত হচ্ছেন বারবার? যে কৌশলে লক্ষ্যে পৌঁছাবে সহজ

এডুকেশন বাংলা ডেস্ক:

প্রকাশিত: ১৭:০৪, ৭ জুলাই ২০১৯   আপডেট: ১৭:০৫, ৭ জুলাই ২০১৯

নিজেকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য যতটা শারীরিক শক্তির প্রয়োজন তার চেয়ে বেশি প্রয়োজন মানসিক শক্তির। মানুষ সাধারণত তখনই হাল ছেড়ে দেয় যখন তারা শারীরিক ও মানসিকভাবে অক্ষম হয়ে পড়ে। কিন্তু সফল হতে হলে হাল ছেড়ে দিলে হবে না। মানসিকভাবে হতে হবে শক্তিশালী। নিজের লক্ষ্যে থাকতে হবে স্থির। তার জন্য আপনি চাইলে কয়েকটি কৌশল অবলম্বন করতে পারেন।

দীর্ঘমেয়াদী লক্ষ্য অর্জন করতে মানসিকভাবে থাকতে হবে স্থির। আর মানসিকভাবে স্থির থাকতে পেনসিলভানিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক অ্যাঞ্জেলা ডকওয়ার্থ কয়েকেটি পরামর্শ দিয়েছেন। তিনি তিনটি ধাপের কথা বলেছেন। নিচে দেওয়া হল ধাপগুলো-

প্রথম ধাপ:

অ্যাঞ্জেলা ডকওয়ার্থ বলেন, মানসিকভাবে শক্তিশালী হতে হলে, এক মাস কাজে কোনো ধরনের ছুটি নিবেন না। সেই সঙ্গে আপনার কোনো কাজ যাতে পড়ে না থাকে সেদিকে লক্ষ্য রাখতে হবে। এক মাসের মধ্যে কাজে কোনো ধরনের ফাঁকি দিতে পারবেন না। কোনো কাজ সময়সূচির দু’দিন আগেই কাজ শেষ করে রাখুন। ওই এক মাসের মধ্যে প্রতি সাতদিনে একজন বন্ধুর সঙ্গে আড্ডা দিতে পারেন।

দ্বিতীয় ধাপ:

মানসিকভাবে শক্তিশালী হওয়ার সঙ্গে শারীরিক দিকেও খেয়াল রাখতে হবে। মানসিক শক্তি একটি পেশীর মতো; এটির বৃদ্ধি এবং বিকাশ করতে কাজ করা প্রয়োজন। অ্যাঞ্জেলা বলেন, এই ধাপে আপনাকে প্রতিদিনের কাজের জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। যেকোনো দশটি কাজ পছন্দ করুন এবং তার মধ্যে নয়টি কাজ করে রাখুন। যখন কোনো কিছু সৃষ্টি করতে পারবেন তখন এটি ব্যবহার করা সহজ হবে। যখন কোনো কিছু গ্রহণ করতে সহজ হয়ে যাবে তখন সবচেয়ে কঠিন প্রশ্নটি করুন। নিজকে প্রমাণ করার জন্য আপনার কাছে হাজারটি ক্ষুদ্র উপায় আছে তা নিজের কাছেই প্রমাণ করুন।

তৃতীয় ধাপ:

অ্যাঞ্জেলা ডকওয়ার্থ বলেন, সফল হতে নিজের মধ্যে কাজের প্রতি শক্তিশালী অভ্যাস তৈরি করুন এবং প্রেরণা উপর নির্ভর করা বন্ধ করুন। মানসিকভাবে শক্তিশালী হতে হলে, আপনাকে প্রতিদিনের কতগুলো অভ্যাস তৈরি করতে হবে। যা আপনাকে একটি সময়সূচিতে আটকা রাখবে। সেই সঙ্গে সহায়তা করবে নিজের প্রতি সৃষ্টি হওয়া ক্ষোভ এবং সফল হওয়ার পথে চ্যালেঞ্জগুলোকে বারবার অতিক্রম করতে।

মানসিকভাবে শক্তিশালী মানুষদের সাহসী হতে হয় না, প্রতিভাবান হতে হয় না বা বুদ্ধিমান হতে হয় না। তারা শুধুমাত্র কাজের প্রতি অবিচল। তারা কোনো কাজে ফাঁকি দেন না। তারা দৈনন্দিন কাজ করে যান। আর এর ফলেই তারা সফল হয় প্রতিটি ক্ষেত্রে।

সূত্র: জেমস ক্লিয়ার

এডুকেশন বাংলা/একে

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর