বুধবার ১১ ডিসেম্বর, ২০১৯ ৮:২২ এএম


স্কুল থেকে ছাত্রীকে বাড়িতে নিলেন শিক্ষক,মেলামেশার সময় দেখে ফেলল..

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৯:৫২, ১৩ জুলাই ২০১৯  

গাইবান্ধা সদর উপজেলায় দশম শ্রেণির এক ছাত্রীর সঙ্গে অবৈধভাবে মেলামেশা করার সময় এলাকাবাসীর হাতে ধরা পড়েছেন এক শিক্ষক।

উপজেলার রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের রহমতপুরে এ ঘটনা ঘটে। এলাকাবাসীর হাতে ধরা পড়া শরিফুল ইসলাম রামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের রহমতপুর আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক। একই বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ম মেয়ে বানিয়ে অবৈধভাবে মেলামেশার সময় এলাকাবাসীর হাতে ধরা পড়েন তিনি।

এ ঘটনায় সহকারী শিক্ষক শরিফুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। শনিবার দুপুরে রহমতপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি শিক্ষক শরিফুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্তের বিষয়টি জানায়।

এলাকাবাসী জানায়, দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ম মেয়ে বানিয়ে দীর্ঘদিন ধরে অবৈধভাবে মেলামেশা করে আসছিলেন শিক্ষক শরিফুল। কয়েকদিন আগে স্কুলের টিফিনের সময় ওই ছাত্রীকে বাড়িতে ডেকে নিয়ে যান শরিফুল। বাড়িতে ওই ছাত্রীর সঙ্গে অবৈধভাবে মেলামেশার সময় দেখে ফেলে স্থানীয়রা। সেই সঙ্গে মুহূর্তেই বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয়ে যায়। পরে ওই শিক্ষককে হাতেনাতে ধরে ফেলে এলাকাবাসী। সেখান থেকে শিক্ষক শরিফুল পালিয়ে যান। বিষয়টি নিয়ে তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েন ওই শিক্ষক। এ অবস্থায় শনিবার বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভায় শিক্ষক শরিফুলকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

তবে শিক্ষক শরিফুল ইসলামের পরিবারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে ঘটনাটি ষড়যন্ত্রমূলক। ওই ছাত্রীর সঙ্গে কোনো ঘটনা ঘটেনি। এ ঘটনায় এখনো কোনো পক্ষ থানায় অভিযোগ করেনি।

এ বিষয়ে সদর উপজেলার রামচন্দ্রপুর ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম বলেন, ছাত্রীর সঙ্গে আপত্তিকর অবস্থায় ধরা পড়ায় বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শরিফুল ইসলামকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

এডুকেশন বাংলা/একে

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর