সোমবার ১৩ জুলাই, ২০২০ ১৪:১৯ পিএম


প্রাথমিক: পাঠ প্রচারের সময়সূচী মসজিদের মাইকে জানানোর সিদ্ধান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ০৬:০৬, ২৭ মে ২০২০   আপডেট: ০৬:৪০, ২৭ মে ২০২০

ফোনের মাধামে অভিভাবকদের সাথে শিক্ষকদের যোগাযোগ,পাঠ প্রচারের সময়সূচী স্থানীয় মসজিদের মাইকের মাধ্যমে জানানো, শিক্ষকগণ প্রশ্নপত্র তৈরি করে শিক্ষার্থীদের বাড়ী পৌঁছে দিয়ে মূল্যায়নের ব্যবস্থা,প্রত্যেক বিদ্যালয় নিজ বিদ্যালয়ের নামে ফেসবুক আইডি খোলাসহ প্রাথমিকে ১৩ টি কর্মসূচি বাস্তবায়নের জন্য সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়েছে।

গত ২৩ মে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মো. আকরাম আল হোসেন এর সভাপতিত্বে এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপিরচালক মো: ফসিউল্লাহর পরিচালনায় মাঠপর্যায়ের ডিডি, ডিপিইও, সুপার, পিটিআই, ইউইও, এইউইও, ইন্সট্রাক্টর, ইউআরসি এবং শিক্ষকগণের সাথে ZOOM APP এ ভার্চুয়াল সভায় এসব সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

১। Zoom App এর মাধ্যমে সকল প্রধান শিক্ষকগণ সহকারী উপজেলা শিক্ষা অফিসারগনের সাথে ভার্চুয়াল সভা করবেন।
২। ঘরে বসে শিখি কার্যক্রমে আরো অধিক পরিমানে শিক্ষার্থীরা যেন দেখে এর ব্যবস্থা ফোনের মাধামে অভিভাবকদের সাথে শিক্ষকগণ যোগাযোগ করে করবেন। পাঠ প্রচারের সময়সূচী স্থানীয় মসজিদের মাইকের মাধ্যমে জানানোর ব্যবস্থা করতে হবে।

৩। সচিব স্যারের নির্দেশনা মোতাবেক স্বাস্থ্য বিধি অনুসরন করে শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করার জন্য বিদ্যালয় ভিত্তিক শিক্ষকগণ প্রশ্নপত্র তৈরি করে শিক্ষার্থীদের বাড়ী পৌঁছে দিয়ে মূল্যায়নের ব্যবস্থা করবেন এবং তা যাচাই করবেন। এ কাজটি সফলভাবে সম্পাদনের জন্যে ইউইও/এইউইও একটি এ্যাকশন প্ল্যান তৈরি করে বাস্তবায়ন করবেন।

৪। ঈদের পরে শিক্ষার্থীদের কিডস এ্যালাউন্স দেয়া হবে, উপজেলা ভিত্তিক সঠিক মানের একই কালারের শার্ট/ স্কাট, প্যান্ট, টাই, জুতা কেনার ব্যবস্থা করা(বিধি মোতাবেক )।

৫। দীর্ঘ দিন স্কুল বন্ধ থাকায় শির্ক্ষাথীদের যে লেখাপড়ার ক্ষতি হয়েছে তা রিকভার করার নিমিত্ত রিকভারী/এ্যাকশন প্ল্যান তৈরি করে তা অধিদপ্তরে প্রেরন করার জন্য ডিজি স্যার অনুরোধ করেন।
৬। প্রত্যেক বিদ্যালয় নিজ বিদ্যালয়ের নামে ফেসবুক আইডি খোলা।
৭। শিক্ষকগণ পাঠদান কার্যক্রম ভিডিও করে  ফেসবুকে আপলোড দেওয়া।
৮। বিদ্যালয়ের সাইন বোর্ডে ইংরেজিতে বিদ্যালয়ের নাম না লিখা ও বিদ্যালয়ের পূর্বে......নং ব্যবহার না করা।
৯। বিদ্যালয়ের ভবনে বাস্তবায়নে এলজিইডি না লিখা এবং তদস্থলে বাস্তবায়নে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর লিখা।
১০। সকল প্রকার মেরামত ও স্লীপের কার্যাবলী  মান সম্মতভাবে যথাসময়ে শেষ করে নির্ধারিত তারিখের মধ্যে বিল ভাউচার দাখিল করা।
১১। অচিরেই এফএম রেডিও চালু করে এর মাধ্যমে পাঠদান কার্যক্রম সম্প্রচার করা হবে যা সকল শিশুদের শিক্ষার পথ সুগম করবে।

১২। Hello Teachers নামে একটি  APS তৈরির কাজ চলছে, যাতে শিক্ষার্থীরা সরাসরি শিক্ষককে যে কোন সমস্যা সম্পর্কে প্রশ্ন  করে উত্তর জানতে পারে।
১৩। ৩০ মে ২০২০ এর মধ্যে ই প্রাইমারী স্কুল  আপডেট করা এবং ৩০ জুন ২০২০ এর মধ্যে APSC এর সকল তথ্য আপলোড ও যাছাই সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর