রবিবার ০৫ এপ্রিল, ২০২০ ২১:৫১ পিএম


শূন্যপাস করা ১৫ কলেজের পাঠদান অনুমতি বাতিল হচ্ছে

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১১:০০, ১১ মার্চ ২০২০  

এইচএসসি পরীক্ষায় কোন পরীক্ষার্থী পাস না করায় ১৫টি কলেজের পাঠদানের অনুমতি বাতিলের উদ্যোগ নিয়েছে ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক বোর্ড। গত ৩ বছরের পরীক্ষায়ও প্রতিষ্ঠানগুলো কাম্যসংখ্যক পরীক্ষার্থী ছিল। কলেজগুলো পাঠদানের প্রাথমিক অনুমতি প্রাপ্তির শর্তপূরণে ব্যর্থ হওয়ায় তাদের পাঠদানের অনুমতি বাতিলের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। প্রাথমিকভাবে প্রতিষ্ঠানগুলোকে শোকজ করা হয়েছে। ঢাকা বোর্ড সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

ঢাকা বোর্ড সূত্র জানায়, ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের এইচএসসি পরীক্ষায় এ ১৫টি কলেজে কোন পরীক্ষার্থী পাস করতে পারেনি। ২০১৭, ২০১৮ ও ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দে কলেজগুলোতে কাম্য সংখ্যক পরীক্ষার্থী ছিলনা। তাই কলেজগুলোর পাঠদানের অনুমতি বাতিলের উদ্যোগ নিয়েছে বোর্ড। প্রাথমিকভাবে কলেজগুলোকে শোকজ করা হয়েছে।

শোকজ নোটিশে বলা হয়, পাঠদানের প্রাথমিক অনুমতি পাওয়ার শর্ত পূরণে ব্যর্থ হওয়ায় ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষ থেকে প্রতিষ্ঠানগুলোর পাঠদানের অনুমতি কেন বাতিল করা হবে না তা জানতে চেয়েছে ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড। আগামী ৩০ দিনের মধ্যে কলেজগুলোকে কারণ দর্শানোর জন্য বলা হয়েছে।

জানা গেছে শূন্যপাস করা কলেজগুলো হল, ঢাকার মোহাম্মদপুরের জামিলা আইনুল আনন্দ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ, উত্তরার টাচস্টোন কলেজ, গাজীপুর সদরের পুবাইল কমার্স কলেজ, গাজীপুর মডেল কলেজ, মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার মেদিনীমণ্ডল গার্লস কলেজ, মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলার ডা. আব্দুর রহমান মহিলা কলেজ, সাটুরিয়া উপজেলার বালিয়াটি কলেজ, টাঙ্গাইলের নাগরপুর উপজেলার বারিগ্রাম উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ, টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলার আলোয়া উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ, টাঙ্গাইলের সদর উপজেলার আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজ, ময়মনসিংহের ভালুকা উপজেলার শহীদ স্মৃতি বিএম কলেজ, কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচর উপজেলার আবুল কাশেম কলেজ, নেত্রকোনার পূর্বধলা উপজেলার জাতীয়াবার কলেজ, নেত্রকোনার মদন উপজেলার বালালী বাগমারা শাহজাহান কলেজ এবং শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার বিষ্ণুপুর খন্দকার বাড়ী কলেজ।


এডুকেশন বাংলা/এজেড

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর