মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল, ২০১৯ ৬:১৯ এএম


কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর

যিনি প্রস্তাবক তিনিই অনুমোদনকারী

প্রকাশিত: ০২:৫১, ৪ জুন ২০১৮   আপডেট: ০৪:২৬, ৫ জুন ২০১৮

কারিগিরি শিক্ষার শীর্ষ পদ কারিগরি শিক্ষা অধিদফতরের (ডিটিই) মহাপরিচালক। বিশেষায়িত শিক্ষা হওয়ায় সংস্থাটির এ পদটি বিধিবদ্ধভাবে কারিগরি ক্যাডারের কর্মকর্তাদের জন্য নির্দিষ্ট। প্রতিষ্ঠার পর থেকে সেই বিধান অনুসৃত হচ্ছিল। কিন্তু বিধি লঙ্ঘন করে প্রায় ৩ বছর ধরে প্রশাসন ক্যাডারের এক কর্মকর্তাকে ওই পদে বসিয়ে রাখা হয়েছে। তিনি একাধারে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট শাখার অতিরিক্ত সচিব। ফলে তিনিই কোনো বিষয়ের প্রস্তাবক, আবার তিনিই অনুমোদনকারী। একই কর্মকর্তা দু’পদে থাকায় কোনো প্রস্তাবের ইতিবাচক-নেতিবাচক দিক যাচাইয়ের সুযোগ থাকে না। সারা দেশের বিভিন্ন টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজে (টিএসসি) বোর্ডের পূর্বানুমোদন ছাড়া ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং কার্যক্রম চালুই এর বড় দৃষ্টান্ত। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, দুই পদে দায়িত্ব পালন করায় মহাপরিচালক অধিদফতরে এক বেলা সময় দেন। আরেক বেলা বসেন মন্ত্রণালয়ে। এর ফলে দূর-দূরান্ত থেকে জরুরি কাজে অধিদফতরে আসা লোকজনকে সেবা পেতে বিলম্বের শিকার হতে হয়।

আজ এ নিয়ে যুগান্তর একটি অনুসন্ধান প্রতিবেদনও প্রকাশ করেছে।

জানা গেছে, শুধু মহাপরিচালক পদেই নয়, কারিগরি সেক্টরে বিভিন্ন ক্ষেত্রে একইভাবে নন-টেকনিক্যাল কর্মকর্তা-শিক্ষক বসিয়ে রাখা হয়েছে। তাদের মধ্যে বিভিন্ন প্রকল্প পরিচালক, অধিদফতরের একাধিক পরিচালক, কারিগরি বোর্ডের সচিব এবং সর্বশেষ গ্রাফিক্স আর্টস ইন্সটিটিউটে চিফ ইন্সট্রাক্টর পদায়ন অন্যতম।

ইন্সটিটিউট অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্সের (আইডিইবি) সাধারণ সম্পাদক সামসুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, দায়িত্ব গ্রহণের পর বর্তমান মহাপরিচালক কারিগরি শিক্ষার উন্নয়নে অনেক অগ্রগতিমূলক পদক্ষেপ নিয়েছেন। কিন্তু কাজের গতিশীলতার স্বার্থে এক কর্মকর্তাকে দুই পদে রাখা ঠিক নয়।

এ প্রসঙ্গে ডিটিই মহাপরিচালক সাংবাদিকদের বলেন, কোনো সরকারি কর্মকর্তারই সরকারের আদেশ লঙ্ঘনের সুযোগ নেই। সরকারের ইচ্ছায় আমাকে ওই একই সঙ্গে দুটি পদে দায়িত্ব পালন করতে হচ্ছে। তিনি বলেন, শুধু টিএসসিই নয়, কারিগরি সেক্টরের বিভিন্ন ধরনের প্রতিষ্ঠানেই শিক্ষক সংকট, অবকাঠামোগত সমস্যা, কারিকুলাম-পাঠ্যক্রমের সমস্যা আছে। কারিগরি শিক্ষার প্রতি আগ্রহী বাড়তি শিক্ষার্থীদের আসন সংস্থান করতে টিএসসিতে ডিপ্লোমা প্রোগ্রাম চালু করা হয়েছে।

 

 

 

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর