সোমবার ০৩ আগস্ট, ২০২০ ১৮:৫২ পিএম


প্রাথমিক শিক্ষার মানোন্নয়নে গণশুনানি

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২০:১৬, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯  

 

সিরাজগঞ্জের চৌহালীর দুর্গম চরাঞ্চলের স্কুলগুলোতে শিক্ষকদের অনুপস্থিতিকে প্রাথমিক শিক্ষার প্রসারে সমস্যা বলে উল্লেখ করা হয়েছে ব্যতিক্রমী গণশুনানিতে। উন্নয়ন সংস্থা মানবমুক্তির উদ্যোগে এই শুনানিতে শিক্ষক, শিক্ষার্থী, জনপ্রতিনিধি, কর্মকর্তা ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের উপস্থিতিতে শিক্ষা ব্যবস্থার প্রসারে নানা বাধা দূরীকরণের সিদ্ধান্ত হয়।

বুধবার (১১ ডিসেম্বর) সকাল হতে দুপুর পর্যন্ত মানবমুক্তি সংস্থার চৌহালী কার্যালয় চত্বরে অক্সফাম, সিপিডি ও উল্লেখিত সংস্থার যৌথ অংশদারিত্বে ‘গনতান্ত্রিক সুশাসনে জনসম্পৃক্ত প্রতিষ্ঠানের অংশগ্রহণ প্রকল্প’ এর অধীনে সরকারি পরিষেবার কার্যকারিতায় চরাঞ্চলে প্রাথমিক শিক্ষা বিষয়ক এই গণশুনানি অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেওয়ান মওদুদ আহমেদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চৌহালী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফারুক সরকার।

এসময় সংস্থার রিকল-২০২১ প্রকল্প সমন্বয়কারী গুরুদাস বিশ্বাসের পরিচালনায় উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মনিরুজ্জামান খান, উপজেলা পপ কর্মকর্তা গিয়াস উদ্দিন, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা একেএম ফুজলুল হক, প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

তখন শুনানিতে অংশ নিয়ে বক্তব্য রাখেন মুরাদপুর চরের অভিভাবক আব্দুল আজিজ, উত্তর নওহাটার শিল্পী খাতুন, গোষাইবাড়ির রহিমা খাতুন, ছাত্র শহিদুল ইসলাম, আবুল কালাম, নারী অধিকার কর্মী সালমা খাতুন, গোয়ালবাড়ি নুর নাহার বেগম।

তারা অভিযোগ করে বলেন, নানা অযুহাতে আমাদের স্থল ও ঘোর ইউনিয়নের ১৪টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কর্মরত অধিকাংশ শিক্ষকেরা নিয়মিত স্কুলে আসেন না। এ কারণে শিক্ষার মান দিন দিন অবনতি হচ্ছে। এছাড়া অনুন্নত যোগাযোগ ব্যবস্থা, পর্যাপ্ত ক্লাশ রুমের অভাব, স্যানিটেশন সমস্যা, বিনোদন ব্যবস্থাহীন, স্বক্রিয়হীন এসএমসি ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের মনিটারিংয়ের অভাব বলে তারা উল্লেখ করেন।

এসময় শুনানিতে অংশ নেয়া তেঘুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আবু তালেব বলেন, যোগাযোগ ব্যবস্থা অনুপযোগী হওয়ার কারণে শিক্ষকেরা স্কুলে যথা সময়ে নৌকায় যাতায়াত করতে পারে না। এছাড়া প্রয়োজনীয় শিক্ষক পদ শূন্য থাকা ও অভিভাবকদের অসচেতনার কারণও এর জন্য দায়ী।

শেষে উপরোক্ত বিষয়ের আলোকে স্কুলে শিক্ষক ছাত্র-ছাত্রীদের যথাযথ সময়ে উপস্থিত নিশ্চিত করনে শিক্ষকদের জন্য যাতায়াতে আলাদা নৌকা ব্যবস্থার পাশাপাশি, অবকাঠামো উন্নয়নসহ প্রাথমিক শিক্ষার উন্নয়নে সবার অংশগ্রহণের আহ্বান জানান, উপজেলা চেয়ারম্যান ফারুক সরকার ও ইউএনও দেওয়ান মওদুদ আহমেদ।

এডুকেশন বাংলা / এমআর

 

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর