বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই, ২০১৯ ২১:৩০ পিএম


প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে হাটু পানি, ভোগান্তিতে শিক্ষার্থীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৭:১০, ১০ জুলাই ২০১৯  

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার বাজিতপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠের চারপাশে বাড়িঘর নির্মাণ হওয়ার কারণে ওই বিদ্যালয়ের পানি নিষ্কাশনের পথ বন্ধ হয়ে গেছে। ফলে মাঠটিতে সামান্য বৃষ্টিতেই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হচ্ছে। এতে বিদ্যালয়ের প্রায় ২০০ ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের পাঠদান চরম ভোগান্তি হওয়ায় ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বিষয়টি উপজেলা শিক্ষা অফিসারকে অবহিত করেছেন।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানাযায়, ওই বিদ্যালয়টি ১৯৫৮ সালে ৯২ শতাংশ জমি নিয়ে স্থাপিত হয়। বর্তমানে ওই বিদ্যালয়টিতে শিশু শ্রেণি থেকে পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত মোট ১৮৭ জন ক্ষুদে শিক্ষার্থী পাঠদান করছে।

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক মোঃ শহিদুল ইসলাম কালের কণ্ঠকে জানান, বিদ্যালয়ের চতুর পার্শ্বে বাড়িঘর নির্মাণ হওয়ায় বিদ্যালয় মাঠের পানি নিষ্কাশনের সব পথ বন্ধ হয়েছে। ফলে অল্প বৃষ্টিতেই মাঠটিতে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হচ্ছে। এতে তারা দৈনিক সমাবেশ করতে পারছেনা। শিক্ষার্থীদের পানি ভেঙ্গে শ্রেণি কক্ষে প্রবেশ করতে হচ্ছে। তাদের কাপড় ভিজে যাচ্ছে। এটা অনেক পীড়াদায়ক।

ওই বিদ্যালয়টির সভাপতি মোঃ শাহানুর আলম রুবেল জানান, মাঠটি জরুরি ভিত্তিতে ভরাট করা ও পানি নিষ্কাশনের জন্য ড্রেন নির্মাণ করা প্রয়োজন। পানি জমে থাকায় শিক্ষার্থীরা মাঠে খেলাধুলা ও চলাফেরা করতে পারছে না। ড্রেন নির্মাণের জায়গা নিয়ে স্থানীয়দের সঙ্গে জটিলতা থাকায় জলাবদ্ধতার বিষয়টি নিরসন করা যাচ্ছে না। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানকে বিষয়টি অবহিত করা হয়েছে তিনি সমাধানের চেষ্টা করছেন।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আসমান জামিল বলেন, স্কুল মাঠটি পরিদর্শন করেছি। জলবদ্ধতা নিরসনে দ্রুত প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

উপজেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ রেজাউল করিম জানান, প্রধান শিক্ষকের নিকট হতে বিষয়টি জেনেছি। পরিদর্শন করে সমস্যাটি সমাধনে দ্রুত প্রয়োজনীয় প্রদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

বিদ্যালয়টিতে সুষ্ঠু শিক্ষার পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে দ্রুত মাঠের পানি নিষ্কাশনের উদ্যোগ করবে কর্তৃপক্ষ এমনটি দাবি জানিয়েছে এলাকাবাসী ও শিক্ষার্থী অভিভাবক।

এডুকেশন বাংলা/একে

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর