শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ৪:১২ এএম


জাপানের সব স্কুল বন্ধ ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ০৮:৪৯, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০   আপডেট: ১২:৪৯, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ আরও ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কায় জাপানের সব স্কুল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। দেশটির প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এ ঘোষণা দিয়েছেন। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাতে এএফপি জানায়, বসন্তের ছুটিসহ আগামী সোমবার থেকে মার্চ মাসের শেষ পর্যন্ত জাপানের সব প্রাথমিক, জুনিয়র হাই ও হাইস্কুল বন্ধ থাকবে। জাপানে করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে ব্যর্থতার অভিযোগে ব্যাপক সমালোচনার মধ্যেই এ ঘোষণা দিল আবে সরকার।

একই সঙ্গে আগামী দুই সপ্তাহ সব ধরনের খেলাধুলাও বন্ধ করা হয়েছে। সাময়িক বন্ধ হওয়া এসব স্কুল খুলবে আগামী এপ্রিলে। প্রায় ৯ শতাধিক জাপানি করোনাভাইরাস কভিড-১৯ আক্রান্ত হওয়ার পর দেশজুড়ে সতর্কতা জারি হয়েছে। দিনের শুরুতে উত্তরের প্রদেশ হোক্কাইডোর স্থানীয় প্রশাসন সব ধরনের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের ডাক দেয়। এর কয়েক ঘণ্টা পর প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে এ ঘোষণা এলো। শিনজো আবে বলেন, ‘প্রতিটি অঞ্চলে বাচ্চাদের মধ্যে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে, যা আগামী এক বা দুই সপ্তাহ অত্যন্ত জটিল আকার ধারণ করতে পারে। সরকার অন্যদের মধ্যে শিশুদের স্বাস্থ্য এবং সুরক্ষাকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিয়ে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’

করোনায় সবচেয়ে আতঙ্কিত জাপান। আগামী ২৪ জুলাই টোকিওতে শুরু হচ্ছে গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক। চলবে ৯ আগস্ট পর্যন্ত। এজন্য একটু সতর্ক এগোতে হচ্ছে জাপান সরকারকে। সংক্রমণ ঠেকাতে আগামী দু’সপ্তাহ সব ধরনের টুর্নামেন্ট এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান বা আদান-প্রদান বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী আবে। জাপানের পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে তিনি বলেন, ‘সংক্রমণ প্রতিরোধে আগামী এক থেকে দু’সপ্তাহ খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটা সময়। সরকার মনে করে, খেলাধুলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও জনসমাবেশের মাধ্যমে সংক্রমণের সম্ভাবনা এ মুহূর্তে সবচেয়ে বেশি।’

এদিকে, করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর চিকিৎসার মাধ্যমে সুস্থ হয়ে বুধবার আবারও সেই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এক জাপানি নারী। নতুন ভাইরাসটির ক্ষেত্রে একই ব্যক্তি দ্বিতীয়বার আক্রান্ত হওয়ার এটাই প্রথম ঘটনা বলে ধারণা করা হচ্ছে। ৪০ বছর বয়সী ওই নারী ২৯ জানুয়ারি করোনা আক্রান্ত হন।

এডুকেশন বাংলা/এজেড

সব খবর
এই বিভাগের আরো খবর